হাসান তানভীর এর MOTO-TRAVEL ব্লগ

Its better to travel well, then to arrive – Buddha

সিলেট ভ্রমণ (sylhet tour)

DSC03633

 

হটাৎ করেই মটরবাইক দিয়ে চলে গেলাম সিলেট।

৩ দিন থেকে মনে হলো, ১ মাস থাকা উচিত – এত দারুন লাগলো। প্রকৃতি অসামান্য সাঁজে সেজে আছে এই সব যায়গায়।

শ্রীমঙ্গল

হটাৎ করেই মটরবাইক দিয়ে চলে গেলাম শ্রীমঙ্গল। কোন রকম প্ল্যান ছাড়াই।

 

DSC03517

 

 

DSC03617

DSC03523
প্রথমে চলে গেলাম শ্রীমঙ্গল। ৪০০ কিঃ মিঃ জার্নি। আহ। প্রথমে গেলাম বাইক্কা বিল। এত রকম অতিথি পাখি আছে- যে কেউ পাগল হতে বাধ্য। ওখানে দূরবীন ব্যাবহার করে দেখলে এদের খুব কাছে থেকে দেখা যায়। ১২/১৩ রকম পাখি দেখা যায়।

DSC03578

 

 

DSC03566

 

DSC03586

এর পর BTRI। এখানে দেখতে পেলাম ফিনলে চায়ের বাগান গুলো। বানরে ভরপুর। খুব মজা পেলাম বাচ্চা বানর গুলোর কান্ড কারখানা দেখে।

DSC03611

ওখান থেকে গেলাম নীলকণ্ঠ চায়ের দোকানে। পান করলাম সাত রঙের চা। ভাল। অদ্ভুদ। কিভাবে বানায় কে জানে। রেসিপি কেউ জানে না। সাদা চাও খেলাম।

vlcsnap-2013-12-29-00h06m03s243

নীলকন্ঠ চায়ের কেবিন

DSC03598

7 layer tea: price: 75

এর পর গেলাম লাউয়াছড়া বনে। বাইক নিয়েই ঢুকে গিয়েছিলাম। বেশ ঘন জংগল।

DSC03622

লাউয়াছড়া উদ্যান

এখানে যাওয়ার পথ গুলো পাগল করে ফেলেছিলো আমাকে। এত দারুন। বাইকার দের জন্য সর্গ। ওখান থেকে চলে যাওয়া যাবে শমসের নগর। মাধব পুর লেক। যাওয়ার রোড গুলো এক শব্দে অসাধারন!!!!!

DSC03627

 

পরদিন রওনা দিলাম জাফ লং এর পথে…

জাফলং

DSC03654

জাফলং অসাধারন সুন্দর ছবির মত একটি জায়গা। শ্রীমঙ্গল থেকে প্রায় ১৫০ কিমিঃ এবং  সিলেট শহর থেকে ৬২ কিলোমিটার উত্তর-পূর্ব দিকে , ভারতের মেঘালয় সীমান্ত ঘেঁষে খাসিয়া-জৈন্তা পাহাড়ের পাদদেশে অবস্থিত, এবং এখানে পাহাড় আর নদীর অপূর্ব সম্মিলন বলে এই এলাকা বাংলাদেশের অন্যতম একটি পর্যটনস্থল হিসেবে পরিচিত।

DSC03644

বাংলাদেশের সিলেটের সীমান্তবর্তি এলাকায় জাফলং অবস্থিত। এর অপর পাশে ভারতের ডাওকি অঞ্চল। ডাওকি অঞ্চলের পাহাড় থেকে ডাওকি নদী এই জাফলং দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করেছে।মূলত পিয়াইন নদীর অববাহিকায় জাফলং অবস্থিত।সিলেট জেলার জাফলং-তামাবিল-লালখান অঞ্চলে রয়েছে পাহাড়ী উত্তলভঙ্গ। এই উত্তলভঙ্গে পাললিক শিলা প্রকটিত হয়ে আছে, তাই ওখানে বেশ কয়েকবার ভূতাত্ত্বিক জরিপ পরিচালনা করা হয়েছে বাংলাদেশের পক্ষ থেকে।

DSC03650

বাংলাদেশে চার ধরণের কঠিন শিলা পাওয়া যায়, তন্মধ্যে ভোলাগঞ্জ-জাফলং-এ পাওয়া যায় কঠিন শিলার নুড়ি।  এছাড়া বর্ষাকালে ভারতীয় সীমান্তবর্তী শিলং মালভূমির পাহাড়গুলোতে প্রবল বৃষ্টিপাত হলে ঐসব পাহাড় থেকে ডাওকি নদীর প্রবল স্রোত বয়ে আনে বড় বড় গণ্ডশিলাও (boulder)।একারণে সিলেট এলাকার জাফলং-এর নদীতে প্রচুর পরিমাণে পাথর পাওয়া যায়। আর এই এলাকার মানুষের এক বৃহৎ অংশের জীবিকা গড়ে উঠেছে এই পাথর উত্তোলন ও তা প্রক্রিয়াজাতকরণকে ঘিরে।

DSC03633

ভোরে রওনা দিলাম। ১ কিমি বাকি থাকতেই জিজ্ঞাসা করে নেবেন বলগার হাট কোথায়। কারন ওখানেই মুল জায়গা – জিরো পয়েন্ট। অল্প পথ অফ রোড ছিলো। আমি একদম জিরো পয়েন্ট এই আমার বাইক নিয়ে গেছি। আঁকা বাকা পথে নৌকা নিয়ে ও যেতে পারেন।  তবে ওখানে রাখা যাবে না। পাশে মাঠে রেখে আবার ফিরে এলাম। পৌঁছে ই মন খুব ভালো হয়ে গেলো। সাইন বোর্ড আছেঃ সামনে ভারতঃ প্রবেশ নিষেধ।

vlcsnap-2013-12-28-23h57m31s245

প্রচুর টুরিস্ট ঘুরে বেড়াচ্ছে। ছবি তুলছে। আমিও লেগে পড়লাম। পানি ভীষণ রকম স্বচ্ছ। আয়নার মত। পাশেই ভারতের মেঘালয় এর পাহাড়। সব মিলিয়ে দারুন এক পরিবেশ।

 

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

Join 262 other followers

Contact Info

Email: black_guiter@hotmail.com Skype: hassan.tanvir1
copyright @ hassantanvir.wordpress.com 2015
%d bloggers like this: